ঢাকা, ৯ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন শেরপুরের কিংবদন্তি ব্যবসায়ী আলহাজ্ব ইদ্রিস মিয়া

প্রকাশিত: ৭:৫৯ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ১৩, ২০২১

রাজাদুল ইসলাম বাবু (স্টাফ রিপোর্টার) ॥ হাজার-হাজার মানুষের শ্রদ্ধা ও ভালোবাসায় চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন বৃহত্তর ময়মনসিংহ বিভাগের অন্যতম প্রতিষ্ঠান ইদ্রিস এন্ড কোং (প্রাঃ) লিমিটেড এর চেয়ারম্যান, বিশিষ্ট শিল্পপতি, দানবীর, শিক্ষানুরাগী ও শেরপুরের কিংবদন্তি ব্যবসায়ী আলহাজ্ব মোঃ ইদ্রিস মিয়া।
১২ এপ্রিল সোমবার রাত ৮ ঘটিকায় রাজধানী ঢাকার ডাঃ আনোয়ার খান মডার্ণ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন শেরপুরের এই কিংবদন্তি ব্যবসায়ী। সোমবার রাতেই তার মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়ে শেরপুরসহ সারাদেশে। অনেকে ফেসবুকের মতো সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম, জেলার বিভিন্ন অনলাইন নিউজ পোর্টালে এই খবর পেয়েছেন। এছাড়া স্থানীয় পত্র-পত্রিকাগুলোতেও গুরুত্বের সঙ্গে প্রচারিত হয় তাঁর মৃত্যু সংবাদ। কিংবদন্তি ব্যবসায়ী আলহাজ্ব ইদ্রিস মিয়ার মৃত্যুর খবর শুনে ভারী হয়ে আসে শেরপুরের আকাশ। শোকের ছায়া নেমে আসে তার প্রতিষ্ঠিত ইদ্রিস এন্ড কোং (প্রাঃ) লিঃ এর কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাঝে। শোকের ছায়া নেমে আসে পুরো জেলা শহর জুড়ে।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, আলহাজ্ব ইদ্রিস মিয়া দীর্ঘদিন ধরে কিডনী, ডায়াবেটিস, উচ্চরক্তচাপসহ নানা রোগে ভুগছিলেন। তিনি শেরপুরে তার কোম্পানীর প্রধান কার্যালয়সহ বিভিন্ন অফিস পরিদর্শনে এসে শারীরিক অসুস্থতা বেড়ে যাওয়ায় ১০ এপ্রিল ঢাকার গুলশানে নিজ বাসভবনে চলে যান। পরে পরিস্থিতির অবনতি হলে তাকে ১২ এপ্রিল সকালে প্রথমে রাজধানীর এ্যাপোলো হাসপাতালে ও পরে ধানমন্ডিস্থ ডাঃ আনোয়ার খান মডার্ণ হাসপাতালের আইসিইউতে থাকাবস্থায় তিনি মারা যান। মৃত্যুকালে তিনি একমাত্র পুত্র তরুণ শিল্পপতি গুলজান মোহাম্মদ ইয়াহ্ ইয়া জিহান, দুই স্ত্রী, আট মেয়েসহ অনেক গুণগ্রাহী ও বন্ধু বান্ধব রেখে গেছেন।১৩ এপ্রিল দুপুর ২টা ৩০ মিনিটে পৌর পার্ক মাঠে এবং দ্বিতীয় জানাযা নামাজ বিকেল ৪টায় তার প্রতিষ্ঠিত ইদ্রিসিয়া কামিল মাদ্রাসা মাঠে অনুষ্ঠিত হয়। এতে বিভিন্ন রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, ব্যসায়িক মহল, সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, আত্মীয় স্বজন ও তার প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ হাজারো মানুষ অংশগ্রহন করেন।
জানাজার আগে বাবার রুহের মাগফিরাত ও বেহেশত কামনায় দোয়া চান মরহুমের একমাত্র পুত্র ও ইদ্রিস এন্ড কোং (প্রাঃ) লিঃ এর পরিচালক গুলজার মোহাম্মদ ইয়াহ্ ইয়া জিহান। জানাজায় অংশ নেয়ার জন্য সব মুসল্লির প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান গুলজার মোহাম্মদ ইয়াহ্ ইয়া জিহান।
জানাযা নামাজে অংশ গ্রহণ করেন স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জাতীয় সংসদের হুইপ, জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাবেক এমপি, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, সদর উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান, পৌরসভার সাবেক চেয়ারম্যান লুৎফর রহমান মোহন, ইদ্রিস এন্ড কোং (প্রাঃ) লিঃ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম, উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোতাসিম বিল্লাহ্ আরিফ, বিক্রয় শাখার ডিজিএম লুৎফর রহমান ঠান্ডা, শেরপুর প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ও নতুনযুগ, নতুনযুগ ডটকমের সম্পাদক মোঃ মেরাজ উদ্দিন, ইদ্রিসিয়া কামিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাও: ফজলুর রহমানসহ অন্যান্যরা।মৃত্যুর আগে মরহুম আলহাজ্ব ইদ্রিস মিয়া শিল্পকারখানা ছাড়াও জিহান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, আলহাজ্ব বাবর আলী হাই স্কুল, ইদ্রিসিয়া কামিল মাদ্রাসা, রেহানা ইদ্রিস মডেল একাডেমীসহ একাধিক ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান ও সামাজিক সংগঠন প্রতিষ্ঠা করেছেন।এছাড়া তার মৃত্যুতে ইদ্রিস এন্ড কোং (প্রাঃ) লিঃ পরিবার গভীরভাবে শোকাহত। তার মৃত্যুতে জেলার শিল্প খাতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। ব্যবসায়ীরা বলছেন, বড় অসময় চলে গেলেন তিনি।
কিংবদন্তি এ ব্যবসায়ীর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন আওয়ামী লীগের সাবেক সংসদ সদস্য, জেলা যুব মহিলা লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক, সাপ্তাহিক শ্যামলী শেরপুর ও শ্যামলীনিউজ২৪ডটকমের সম্পাদক-প্রকাশক এডভোকেট ফাতেমাতুজ্জহুরা শ্যামলী।

  • এই বিভাগের সর্বশেষ

    ঘোষনাঃ